Monday, August 1, 2022

ঈদে রকমারি পায়েস

ঈদ উদযাপনে এখন ঘরে ঘরে তৈরি হয় নানা স্বাদের আধুনিক মিষ্টান্ন। তারপরও খির বা পায়েসের আলাদা আবদার থাকেই। এই আয়োজনে থাকছে রকমারি পায়েসের রেসেপি।

সুগন্ধি পায়েস
দুধ ৩ লিটার, পোলাও চাল আধা ভাঙা এক কাপ, গুঁড়ো দুধ এক কাপ, চিনি স্বাদমতো, তেজপাতা একটি, দারুচিনি টুকরো দুটি, এলাচ দুটি, গোলাপজল ২ ফোটা, বাদাম ইচ্ছে মতো, কিশমিশ কুচি এক টেবিল চামচ।

প্রণালি
পোলাও চাল ধুয়ে ভিজিয়ে রাখুন। একটা পরিষ্কার হাড়িতে দুধ গরম হতে দেন। দুধ ফুটলে তাতে ভেজানো চাল দেন। এলাচ দারুচিনি তেজপাতা দেন। চাল ফুটে উঠলে ভালোভাবে ঘুটে নেন।

এবার স্বাদমতো চিনি আর কিশমিশ কুচি দিয়ে নাড়ুন। দুধ ঘন হয়ে এলে গুঁড়ো দুধ মিশিয়ে নেন। নামানোর আগে গোলাপ জল দেন। পরিবেশন পাত্রে ঢেলে বাদাম কিশমিশ সাজিয়ে নেন।

ছানার স্বাদে পায়েস
চালের গুঁড়ো আধা কাপ, দুধ আড়াই লিটার, কনডেন্সড মিল্ক আধা টিন, গুঁড়ো দুধ দুই টেবিল চামচ। কাজু, পেস্তা, কিশমিশ কুচি দুই টেবিল চামচ, এলাচ গুঁড়ো কোয়ার্টার চা চামচ। কয়েক ফোটা ভিনেগার।

প্রণালি
আধা লিটার দুধ গরম করে তাতে ভিনেগার দিয়ে ছানা তৈরি করুন। পাতলা কাপড়ে ছেকে নেন। হাতে চেপে পানি সরিয়ে ঝরঝরে করে নেন। এবার বাকি ২ লিটার দুধ গরম হতে দিন, এতে চালের গুঁড়ো দিয়ে নাড়ুন।

চালের গুঁড়ো মিশে গেলে, কনডেন্স মিল্ক দিয়ে নাড়ুন। ঘন হয়ে আসতে থাকলে ছানা, বাদাম, কিশমিশ কুচি দিয়ে নেড়ে নেন। গুঁড়ো দুধ গুলিয়ে ঢালুন। নামানোর পূর্বে এলাচি গুঁড়ো ছিটিয়ে দেন। হালকা মিষ্টি এ পায়েস খেতে সুস্বাদু।

জাফরানি পায়েস
দুধ দেড় লিটার, কনডেন্সড মিল্ক আধা টিন, গুঁড়ো দুধ আধা কাপ, জাফরান এক চিমটি, সাগুদানা আধা কাপ, এক মুঠো পোলাও চাল। এলাচ গুঁড়ো কোয়ার্টার চা চামচ, চিনি দুই টেবিল চামচ, পেস্তাবাদাম কুচি এক টেবিল চামচ।

প্রণালি
সাগুদানা ভালো ভাবে ধুয়ে ভিজিয়ে রাখুন। দুধ গরম করে চাল দেন। চাল সেদ্ধ হয়ে এলে ঘুটে নেন। কনডেন্স মিল্ক দিয়ে নাড়ুন। চিনি দেন। সাগুদানা দিয়ে নাড়ুন, গুঁড়ো দুধে জাফরান ভিজিয়ে ঢালুন। এলাচ গুঁড়ো ছিটিয়ে নামিয়ে পরিবেশন পাত্রে ঢেলে পেস্তাবাদাম কুচি ছড়িয়ে দেন।

গোলাপ ফিরনি
পোলাও চাল আধা কাপ, দুধ দুই লিটার, ক্রিম ১০০ মিলি, গোলাপ জল এক চা চামচ, চিনি স্বাদমতো, গুঁড়ো দুধ এক কাপ। বাদাম কুচি এক টেবিল চামচ।

প্রণালি
দুধের মধ্যে চাল দিয়ে সেদ্ধ হতে দেন। ভালো ভাবে সেদ্ধ হয়ে এলে নামিয়ে ঠাণ্ডা করুন। ব্লেন্ডারে ব্লেন্ড করে নেন। আবার চুলায় দিয়ে চিনি দেন। গুঁড়ো দুধ মিশিয়ে নেন। গোলাপ জল দেন। ঘন হয়ে আসতে থাকলে ক্রিম ঢেলে ভালো ভাবে মিশিয়ে নেন। নামিয়ে ঠাণ্ডা হলে গোলাপ পাপড়ি, বাদাম কুচি ছড়িয়ে পরিবেশন করুন।

Latest news
Related news