Tuesday, August 16, 2022

হাসপাতালের বিছানায় কেটেছে শাবনূরের ঈদ

ঢালিউডের একসময়ের জনপ্রিয় নায়িকা শাবনূরের এবারে ঈদ কেটেছে হাসপাতালের বিছানায়। বেশকিছু দিন ধরে নায়িকার শারীরিক অবস্থা ভালো যাচ্ছে না।হঠাৎ করে ঠান্ডা লেগে তার গলা বসে গেছে। যার ফলে কথা বলতে অসুবিধা হচ্ছিল। ঠান্ডাজনিত এমন সমস্যা নিয়ে ঈদের আগের দিন অস্ট্রেলিয়ার সিডনির একটি হাসপাতালে ভর্তি হতে হয় তাকে৷ গুরুতর সমস্যা না হওয়ায় একদিন বাদেই বাসায় ফিরেন শাবনূর। ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী বর্তমানে বাসায় থেকেই চিকিৎসা নিচ্ছেন এই অভিনেত্রী। অসুস্থতার খবর অস্ট্রেলিয়া থেকে শাবনূর নিজেই জানিয়েছেন।

তিনি বলেন, হঠাৎ করে ঠান্ডা লেগেছে আমার। এত পরিমাণে ঠান্ডা লেগেছে যে, ভালো করে কথাই বলতে পারছি না। গলার খুবই খারাপ অবস্থা হয়েছে। আল্লাহর রহমতে অন্য সমস্যা নেই। এবার ঈদ ঘিরে অনেক পরিকল্পনা ছিল৷ তবে তা আর হলো না। ঈদের দিন হাসপাতালেই থাকতে হয়েছে। সেভাবে জটিল সমস্যা না দেখা দেওয়ায় ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী বাসাতেই চিকিৎসা নিচ্ছি৷ ডাক্তার কিছু ঔষধ দিয়েছেন সেগুলো নিয়মিত খেলেই সুস্থ হয়ে যাব আশা করি।

শাবনূর আরো বলেন, অসুস্থতার কারণে কারো সঙ্গেই এবার ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করতে পারিনি। ঈদের দিন পরিবারের সবাই মিলে বের হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু অসুস্থতার কারণে তা আর সম্ভব হলো না। ঘরবন্দিই কাটছে এবারের ঈদ। সবাই আমার জন্য দোয়া করবেন। বেশ কয়েক বছর ধরেই ছেলে আইযানকে নিয়ে অস্ট্রেলিয়ায় সিডনিতে স্থায়ীভাবে বসবাস করছে এ চিত্রনায়িকা; তার পরিবারের অন্যান্য সদস্যরাও সিডনিতে থাকেন।

নব্বইয়ের দশকের গোড়ার দিকে ‘চাঁদনী রাতে’র মধ্য দিয়ে চলচ্চিত্র জগতে পা রাখেন শাবনূর। পরে সালমান শাহর সঙ্গে তার জুটি হয়ে উঠেছিল দারুণ জনপ্রিয়; তাদের অভিনীত ‘স্বপ্নের ঠিকানা’, ‘সত্যের মৃত্যু নেই’, ‘তুমি আমার’সহ বেশ কয়েকটি সিনেমা ছিল বেশ ব্যবসা সফল। ২০০৫ সালে মোস্তাফিজুর রহমান মানিকের ‘দুই নয়নের আলো’ চলচ্চিত্রে অভিনয়ের জন্য জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পান তিনি। সর্বশেষ মোস্তাফিজুর রহমান মানিকের ‘এতো প্রেম এতো মায়া’ চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছিলেন তিনি।

Latest news

00

Related news